শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪ | ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

৪৫ বিসিএস মে মাসে নেওয়ার পরিকল্পনা পিএসসির

নিজস্ব প্রতিবেদক
১৪ মার্চ ২০২৩ ০৪:৩৪ |আপডেট : ১৪ মার্চ ২০২৩ ১৬:৩৭
সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি)
সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি)

৪৫তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা মে মাসের একটি সুবিধাজনক সময়ে নেওয়ার পরিকল্পনা করছে সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি)।

পরীক্ষার প্রশ্নপত্র ছাপানোর তারিখ নির্দিষ্ট হলে পরীক্ষা নেওয়ার তারিখ জানিয়ে দেওয়ারও পরিকল্পনা রয়েছে পিএসসির। পিএসসির একাধিক সূত্র বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।

জানতে চাইলে পিএসসির একাধিক কর্মকর্তা জানান, মার্চের দ্বিতীয় সপ্তাহে পিএসসি ৪৫তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা নিতে চেয়েছিলো কিন্তু ওই সময়ে পিএসসি নির্ধারিত প্রেসে প্রশ্ন ছাপানোর শিডিউল পায়নি। এখনো সেই প্রেস থেকে প্রশ্ন ছাপানোর নির্দিষ্ট তারিখ পিএসসিকে জানানো হয়নি। তবে প্রশ্ন ছাপানোর তারিখ এরই মধ্যে নির্ধারন করবে বলে আশা করছে পিএসসি। সেই অনুসারে মে মাসের একটি সুবিধাজনক সময়ে ৪৫তম বিসিএস পরীক্ষা নেওয়ার পরিকল্পনা আছে পিএসসির। আগামীকাল পরীক্ষার তারিখ নির্ধারনের জন্য কোন সভা আছে কি না জানতে চাইলে একজন কর্মকর্তা বলেন, আগামীকাল এ বিষয়ে কোন নির্ধারিত সভা নেই।

পিএসসি বলছে, ৪৫তম বিসিএসের সর্বশেষ তথ্য অনুসারে, এতে আবেদন করেছেন ৩ লাখ ৪৬ হাজার প্রার্থী। গত বছরের ৩০ নভেম্বর পিএসসির ওয়েবসাইটে ৪৫তম বিসিএসের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়। ১০ ডিসেম্বর আবেদন শুরু হয়ে শেষ হয় ৩১ ডিসেম্বর। ৪৫তম বিসিএসের মাধ্যমে মোট ২ হাজার ৩০৯ জন ক্যাডার নেওয়া হবে। নন-ক্যাডারে নেওয়া হবে ১ হাজার ২২ জনকে।

৪৫তম বিসিএসে ২ হাজার ৩০৯ ক্যাডারের মধ্যে সবচেয়ে বেশি নিয়োগ হবে চিকিৎসায়। সহকারী ও ডেন্টাল সার্জন মিলিয়ে ৫৩৯ জনকে নিয়োগ দেওয়া হবে। চিকিৎসার পর সবচেয়ে বেশি শিক্ষা ক্যাডারে নিয়োগ পাবেন ৪৩৭ জন। এরপর পুলিশে ৮০, কাস্টমসে ৫৪, প্রশাসনে ২৭৪ জনকে নিয়োগ দেওয়া হবে।

প্রিলিমিনারি পরীক্ষায় ২০০ নম্বরের এমসিকিউ প্রশ্ন থাকবে। প্রতিটি শুদ্ধ উত্তরের জন্য ১ নম্বর এবং ভুল উত্তর দিলে প্রতিটি ভুলের জন্য মোট প্রাপ্ত নম্বর থেকে শূন্য দশমিক ৫০ নম্বর করে কাটা যাবে।



মন্তব্য করুন